বৃহষ্পতিবার, 26 আগষ্ট 2021 23:49

সত্য মোরা নির্বাচিত

লিখেছেন
লেখায় ভোট দিন
(0 টি ভোট)
                সত্য মোরা

মাটি, পাথরের কাছে নত হোস তোরা
সে তো মোর হাতে গড়া।
তারি মতে চলে নাকি 
বিশ্ব ব্রহ্মান্ড ধরা।

যদি তাই হতো,মোর স্থান কোথা!
আমি তো গড়েছি তারে,
তার মহিমা প্রচার --
আমি তো করেছি দ্বারে দ্বারে। 

আমি তো গড়েছি মসজিদ, গির্জা, দেবালয়
আমি তো গড়েছি কালের চাকা
বেঁচে থাকা লোকালয়। 
প্রাপ্য সম্মান দিতে
তোদের এত কিসের ভয়।

আমি তো গড়েছি পথ ঘাট যান,
প্রসাদ,অট্টালিকা, শপিংমল 
পেয়েছি কি তাই
প্রতিটা ঘামের এতটুকু সম্মান।

সভ্যতার রথ টানতে গিয়ে 
শিড়দাঁড়া গিয়েছে বেঁকে,
তবু মোরা এই বঞ্চনা সয়ে
অন্ন জোগাচ্ছি তোকে।

মোর গৃহে আজ অসুস্থ মা
অপুষ্ট শিশু রয়,
অবহেলা তাই মোরই প্রাপ্য
ধনে ভরা দেবালয়। 

সে ছিল যখন কাদাপাথর
তখন ছিল মোদের কদর,
আমার ছোঁয়ায় রূপ যে পেল
দামটা মোদেরই কমে গেল।

মত্ত সবাই ওকে নিয়েই
পড়ে রইলেম আমি,
মোর প্রবেশ নিষেধ দেবালয়ে 
তিনিই হলেন অন্তর্যামী। 

বুঝবি তোরা সেদিন 
জাগব মোরা যেদিন। 
সভ্যতার ভিত টলে যাবে 
থাকবেনা কনো আলাদীন। 

জানবি সেদিন অমোঘ সত্য
"মানুষই দেবতা গড়ে
দেবতা মানুষ নয়।"            
            
23 বার পড়া হয়েছে সর্বশেষ হালনাগাদ বুধবার, 01 সেপ্টেম্বর 2021 18:54
শেয়ার করুন
রমাকান্ত পাঁজা

রমাকান্ত পাঁজা, পশ্চিমবঙ্গের পূর্ব বর্ধমান জেলার নবস্থা গ্রামের বাসিন্দা। পিতা জগন্নাথ পাঁজা ও মাতা বাসন্তী পাঁজা। ১৯৭৪ সালে ১৭ ই নভেম্বর নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারে জন্ম। গ্রামের স্কুলে পাঠ শেষে কারিগরি ঞ্জানের জন্য শহরে গমন। বর্তমানে গৃহশিক্ষকতার কাজে নিযুক্ত।

এই বিভাগে আরো: « জীবন বোধ আঁকি বিশ্ব »

মন্তব্য করুন

Make sure you enter all the required information, indicated by an asterisk (*). HTML code is not allowed.