সোমবার, 22 ফেব্রুয়ারী 2021 14:33

প্রাণের একুশ

লিখেছেন
লেখায় ভোট দিন
(0 টি ভোট)
                প্রাণের একুশ 
আতাউর রহমান নোমান। 

একুশ এলে বেকুব লাগে ভিন্ন ভাষা শুনে 
বাংলা আমার প্রাণের ভাষা বলে গুণে গুণে
ভাষণে সব আধেক বলে ভিন দেশী সব ভাষা
ভাষার দিনের ভাষণ শুনে হাসে গাঁয়ের চাষা।

বাংলা ভাষায় স্নাতক নাকি করেছে সেই নেতা 
কথায় কথায় ইংরেজি কয় ভাষার দিনেও সে তা
শহীদ ভায়ের স্মরণ করে ভিন ভাষা লই মুখে
নেতার ভাষণ মুখ যা বলুক বাংলা ভাষা বুকে।

অবাক লাগে শিক্ষিত সব লোকের কথা শুনে
বাংলা ছেড়ে অন্য ভাষা বুকে যখন বুনে
মায়ের মুখের মধুর ভাষা হয়তো লাগে তিতে
কয় তারিখে ভাষা দিবস নাই যে তাদের ভিতে।

এই একুশেও বাংলা তারিখ আট ফাল্গুন ছিলো 
বাংলা তারিখ একুশটা আজ গিলে বুঝি নিল
স্মরণ করি বাংলা ভাষা ইংরেজি দিন ধরে 
আমিও বলি প্রাণের একুশ বাংলা ভাষার তরে।

একুশ এলে আমি কাঁদি কাঁদে আমার মায়ে
এই একুশে প্রাণ দিলো যে আমার কতো ভায়ে
মায়ের মুখের বাংলা ভাষা আনতে কেড়ে তারা 
কেমনে ভুলি রক্ত বানে হারিয়ে গেলো যারা।            
            
10 বার পড়া হয়েছে
শেয়ার করুন
আতাউর রহমান নোমান

আতাউর রহমান নোমান ১০ই মার্চ ১৯৮২ ইং সনে মৌলভীবাজার জেলার কুলাউড়া উপজেলার টিলাগাঁও ইউনিয়নের বাগৃহাল নামক গ্রামে একটি সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতা মরহুম আব্দুল বারী কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্টোর কিপার থাকাকালীন মৃত্যুবরণ করেন। মাতা একজন আদর্শ গৃহিণী। তিন ভাই বোনের মধ্যে তিনি সবার বড়। লেখাপড়া শেষ করে তিনি কুলাউড়া উপজেলাধীন রবির বাজার আলিম মাদ্রাসায় শিক্ষকতার মাধ্যমে তাঁর কর্মজীবন শুরু করেন। বর্তমানে তিনি স্বনামধন্য পাল্লাথল চা বাগানে একাউন্টস অফিসার হিসেবে কর্মরত আছেন। তিনি ব্যস্তঘন জীবনে অত্যন্ত বিচক্ষণতার সহিত কবিতার পাশাপাশি গান, গজল, ইসলামি সংগীত ও গল্প লিখে থাকেন। ইতোমধ্যে তাঁর লেখা কিছু গান দেশের প্রখ্যাত শিল্পীদের কন্ঠে সুরারোপিত হয়ে ইউটিউব সহ বিভিন্ন মাধ্যমে শোনা যায়।

আতাউর রহমান নোমান এর সর্বশেষ লেখা

মন্তব্য করুন

Make sure you enter all the required information, indicated by an asterisk (*). HTML code is not allowed.